ইন্টারনেটের গতি কমানোর সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার

ইন্টারনেটের গতি কমানোর সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করে তা স্বাভাবিক রাখতে নতুন নির্দেশনা দিয়েছে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি)।আজ সোমবার সকালে নতুন এই নির্দেশনাটি ইন্টারন্যাশনাল ইন্টারনেট গেটওয়েকে (আইআইজি) মেইল করা হয়েছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে বিটিআরসির মুখপাত্র সরয়ার আলম জানান, ইন্টারনেট ধীর গতি করার নির্দেশনাটি প্রত্যাহার করা হয়েছে। পরবর্তী নির্দেশনা না আসা পর্যন্ত ইন্টারনেটের গতি আগের মতোই স্বাভাবিক থাকবে।এর আগে চলমান এসএসসি পরীক্ষার প্রশ্নপত্র ফাঁস রোধে পরীক্ষা শুরুর দুই ঘণ্টা আগে থেকে মোট আড়াই ঘণ্টা সময় ইন্টারনেটে ধীর গতি রাখার সিদ্ধান্ত নেয় সরকার। সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, আগামী ২৪ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত সকাল ৮টা থেকে সাড়ে ১০টা পর্যন্ত ইন্টারনেটের গতি সীমিত রাখার সিদ্ধান্ত হয়। পরে এ ব্যাপারে নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিটিআরসি থেকে দেশের সব আইআইজিকে (ইন্টারন্যাশনাল ইন্টারনেট গেটওয়ে) এই নির্দেশ পাঠানো হয়।এ ছাড়া ধীর গতিতে ইন্টারনেট চালানোর সিদ্ধান্ত পরীক্ষামূলকভাবে বাস্তবায়নে গতকাল রোববার রাত ১০টা থেকে সাড়ে ১০টা পর্যন্ত ইন্টারনেট সেবার গতি ধীর ছিল। আইএসপি ও মোবাইল অপারেটরগুলোতে ২৫ কেবিপিএস (কিলোবিট পার সেকেন্ড) ব্যান্ডউইথ সরবরাহর কারণে কার্যত বন্ধই ছিল ইন্টারনেট।তবে এ সিদ্ধান্তের ফলে অ্যাভিয়েশন খাতে বিপর্যয় নেমে আসতে পারে। তাই আজ আবার ইন্টারনেটের গতি স্বাভাবিক করা নির্দেশনা দেওয়া হয়।