আজকের দিন-তারিখ
  • বৃহস্পতিবার ( সকাল ৭:৩১ )
  • ২১শে সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ইং
  • ১লা মুহাররম, ১৪৩৯ হিজরী
  • ৬ই আশ্বিন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ ( শরৎকাল )

ফেসবুকে সমালোচনা, জাবির ৮০ শিক্ষার্থীকে শোকজ

0

ফেসবুকে সমালোচনা করায় জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের (জাবি) বায়োটেকনোলজি অ্যান্ড জেনেটিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ৮০ জন শিক্ষার্থীকে শোকজ করেছে বিভাগটি। এসব শিক্ষার্থীকে শোকজের নামে ডেকে নিয়ে হেনস্তা করা হচ্ছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

জানা গেছে, BGEians Democrat নামক একটা পেজ থেকে বিভাগের শিক্ষার্থীরা বিভাগের শিক্ষকদের বিভিন্ন ধরনের অসঙ্গতি তুলে ধরেন। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে ওই বিভাগ এসব শিক্ষার্থীকে শোকজ করেছে।

নাম প্রকাশ্যে অনিচ্ছুক একজন শিক্ষার্থী জানিয়েছেন, ‘পেইজটিতে শিক্ষকরা পড়াতে পারে না, গুগল থেকে স্লাইড ডাউনলোড করে ক্লাসে পড়ায়, সিলেবাসের বাইরের বিষয় যেগুলো স্যাররা পারে সেগুলো পড়ায়, গবেষণাগারে নিয়মিত পাঠদানে শিক্ষকরা আন্তরিক নন এমন ধরনের সমালোচনা ছিল। পেইজটি যে শিক্ষার্থীরা চালাতেন এবং যারা যারা পেইজে প্রকাশিত বিভিন্ন পোস্টে লাইক-কমেন্ট করেছে তাদের সকলকেই তদন্ত কমিটিতে ডাকা হয়েছে।’

এ বিষয়ে বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক আব্দুল্লাহ মোহাম্মদ সোহায়েলকে আহ্বায়ক করে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেছে বিভাগটি। অভিযুক্ত শিক্ষার্থীদের বৃহস্পতিবার সকাল ১০ টা থেকে বিভিন্ন বিষয়ে জেরা করে তদন্ত কমিটি। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত রাত ৮ টায়ও শিক্ষার্থীদের জেরা করা হয়।

কারণ দর্শানোর নোটিশে বলা হয়, BGEians Democratনামের একটি পেইজে বিভাগীয় বিভিন্ন বিষয়ে অশালীন, অসম্মানজনক, আপত্তিকর, TROLLING এবং মন্তব্য প্রকাশ পাওয়ায় বিভাগের সুনাম ক্ষুণ্ন হয়। এই পেইজে অভিযুক্ত শিক্ষার্থীদের সংশ্লিষ্টতা থাকায় অধিকতর তদন্তের জন্য তাদের ডাকা হয়েছে। ফেসবুক পেইজটিতে শিক্ষকদের বিরুদ্ধে কি ধরনের সমালোনা করা হয়েছে এ সম্পর্কে কিছুই বলতে রাজি হননি বিভাগটির শিক্ষকরা।

একটি সূত্র জানায়, বিভাগের পক্ষ থেকে আইসিটি বিশেষজ্ঞ নিয়ে এসে পেইজটির এডমিনদের শনাক্ত করা হয়। বর্তমানে পেইজটি বন্ধ রয়েছে। এদিকে অনিবার্য কারণ দেখিয়ে বিভাগটির ৪২ ও ৪৩ তম ব্যাচের পূর্বনির্ধারিত পরীক্ষা স্থগিত করেছে কর্তৃপক্ষ।

তদন্তের বিষয়ে বিভাগের সভাপতি সহযোগী অধ্যাপক শরিফ হোসেনের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘এটা একান্তই বিভাগের আভ্যন্তরীণ বিষয়। বিভাগ এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের সুনাম যেন অক্ষুণ্ন থাকে এ জন্যই তাদেরকে ডাকা হয়েছে। বিভাগের একাডেমিক কমিটি থেকেই তদন্ত কমিটিটি গঠন করা হয়েছে।’

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক আবুল হোসেন বলেন, ‘বিভাগ এইভাবে শিক্ষার্থীদেরকে শোকজ করতে পারে না। তবে তারা বিভাগের অভ্যন্তরীণ ব্যাপারে জিজ্ঞাসাবাদ করতে পারে।’

Share.

Comments are closed.