করোনার মধ্যেও লাভের পাহাড় গড়েছে স্যামসাং

করোনাভাইরাস মহামারি মানুষের স্বাস্থ্যগত দিক থেকে তো বটেই, অর্থনৈতিকভাবে বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানের জন্যে এসেছে অভিশাপ হয়ে। তবে এতে শাপেবর হয়েছে প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানগুলোর জন্য।

আগের চেয়ে অনেক বেশি মানুষ ঘরে বসে কাজ শুরু করায় হঠাৎ করেই চাহিদা বেড়ে গেছে তাদের, ফলে পকেটে ঢুকছে কাড়ি কাড়ি অর্থ। এমন রমরমা অবস্থা দক্ষিণ কোরীয় টেক জায়ান্ট স্যামসাংয়েরও।

বিশ্বের বৃহত্তম স্মার্টফোন নির্মাতা স্যামসাং জানিয়েছে, গতবারের তুলনায় চলতি বছরের দ্বিতীয় প্রান্তিকে তাদের মুনাফার পরিমাণ বৃদ্ধি পেয়েছে প্রায় ২৩ শতাংশ। মহামারির মধ্যে কম্পিউটার চিপের ব্যাপক চাহিদা বৃদ্ধি এবং তার সঙ্গে দামও বেড়ে যাওয়ার কারণেই প্রতিষ্ঠানটির মুনাফার পরিমাণ একলাফে এতটা বেড়েছে।

এক বিবৃতিতে স্যামসাং কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, করোনাভাইরাসের প্রভাবে ঘরে বসে কাজ এবং অনলাইন শিক্ষা অব্যাহত থাকায় তাদের তৈরি মেমোরি চিপের ব্যাপক চাহিদা বেড়েছে। যদিও মোবাইলের চাহিদা তুলনামূলকভাবে কম ছিল।

মেমোরি চিপ ব্যবসায় স্যামংয়ের অন্যতম প্রতিদ্বন্দ্বী এসকে হাইনিক্স এবং মার্কিন প্রতিষ্ঠান মাইক্রোন টেকনোলজির পণ্যেরও চাহিদা বেড়েছে এই মহামারির মধ্যে।

গত সপ্তাহে হাইনিক্স জানিয়েছে, আগের বছরের তুলনায় চলতি বছরের দ্বিতীয় প্রান্তিকে তাদের মুনাফা বেড়ে প্রায় তিনগুণ হয়েছে। আর, জুন মাসে মাইক্রোন পূর্বাভাস দিয়েছিল, মেমোরি চিপের ব্যাপক চাহিদার কারণে দ্বিতীয় প্রান্তিকে তাদের মুনাফাও অপ্রত্যাশিত হারে বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »
Share via
Copy link
Powered by Social Snap