থার্টিফার্স্ট নাইটে সব বার বন্ধ, চলবে ব্যাপক মাদকবিরোধী অভিযান

থার্টিফার্স্ট নাইট উপলক্ষে আগামী ৩০ ডিসেম্বর সন্ধ্যা ৬টা থেকে ১ জানুয়ারি সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত সব বার বন্ধ থাকবে বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল। তিনি জানান, দিনটি উপলক্ষে উন্মুক্ত স্থানে কনসার্ট ও নাচ-গান করা যাবে না। চালানো হবে ব্যাপক মাদকবিরোধী অভিযান। এ ছাড়া ২৫ ডিসেম্বর খ্রিস্ট ধর্মাবলম্বীদের বড়দিন উপলক্ষেও নিরাপত্তা জোরদার করা হচ্ছে বলে জানান তিনি।

আজ বৃহস্পতিবার বেলা ১১টায় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে থার্টিফার্স্ট নাইট ও ২৫ ডিসেম্বর খ্রিস্ট ধর্মাবলম্বীদের বড়দিন উপলক্ষে উচ্চপর্যায়ের বৈঠক শেষে এ কথা জানান আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল।

এ ব্যাপারে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘থার্টিফার্স্ট নাইটকে কেন্দ্র করে কোনো বিশৃঙ্খলা সহ্য করা হবে না। কূটনৈতিকপাড়া ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়সহ (ঢাবি) বিভিন্ন এলাকায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী সর্বোচ্চ নিরাপত্তায় থাকবে।’

মন্ত্রী আরো জানান, ঢাবিতে ৩০ ডিসেম্বর রাত ৮টার পর বিশ্ববিদ্যালয়ের স্টিকারভুক্ত গাড়ি ছাড়া অন্য কোনো যানবাহন প্রবেশ করতে পারবে না। ৩০ ডিসেম্বর বিকেল ৪টা থেকে ১ জানুয়ারি সন্ধ্যা পর্যন্ত সারা দেশে যেকোনো ধরনের বৈধ অস্ত্রও ব্যবহার করা যাবে না।

বড়দিন প্রসঙ্গে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জানান, ২৫ ডিসেম্বর বড়দিন উপলক্ষে দেশের তিন হাজার ৫০০টি চার্চে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী নিয়োজিত থাকবে। পাশাপাশি চার্চগুলোর নিজস্ব স্বেচ্ছাসেবক দলও নিয়োজিত থাকবে। সব চার্চে সিসি ক্যামেরা, আর্চওয়ে ও মেটাল ডিটেক্টর থাকবে। ওই দিন কূটনৈতিকপাড়াসহ যেসব এলাকায় খ্রিস্টান ধর্মাবলম্বীদের বেশি দেখা যায়, ওই সব এলাকায় নিরাপত্তা জোরদার থাকবে।

বৈঠকে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা ছাড়াও পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »
Share via
Copy link
Powered by Social Snap