মাছ চাষে ঝুঁকছেন শিক্ষিত বেকার যুবকরা : প্রাণিসম্পদমন্ত্রী

মৎস্য সপ্তাহের সমাপনী দিন উপলক্ষে বক্তব্যকালে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদমন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম বলেছেন, মাছ চাষ করে বর্তমানে অনেকেই স্বাবলম্বী হয়ে উঠেছেন। শিক্ষিত বেকার যুবকরাও এখন মাছ চাষে ঝুঁকছেন। এজন্য মৎস্য সম্পদকে আরও সমৃদ্ধ করার কাজ চলছে। ইতোমধ্যেই উৎপাদিত মাছে দেশের চাহিদা পূরণ হয়েছে। এখন বিদেশে রফতানি করে বৈদেশিক মুদ্রা অর্জনের চেষ্টা করতে হবে।

মন্ত্রী বলেন, উৎপাদন আরও বৃদ্ধির লক্ষ্যে নিষেধাজ্ঞাকালীন মাছ নিধন বন্ধ করতে হবে। অব্যাহত নিধনের কারণে দেশীয় প্রজাতির মাছ প্রায় বিলুপ্ত হয়ে গিয়েছিল। মৎস্য বিভাগ কৃত্রিম এবং বৈজ্ঞানিক উপায়ে ৬৫ প্রজাতির দেশীয় মাছ দুর্লভ অবস্থা থেকে সহজলভ্য করেছে। মাছ মানুষের আমিষের চাহিদা মেটায় উল্লেখ করে তিনি বলেন, এ বিষয়ে জনগণের মাঝে সচেতনতা বৃদ্ধির জন্য জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ পালন করা হচ্ছে।

সোমবার (২৭ জুলাই) বিকালে মৎস্য সপ্তাহের সমাপনী দিন উপলক্ষে বরিশালের বাবুগঞ্জ উপজেলার ঐতিহ্যবাহী দুর্গাসাগর দিঘি চত্বরে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রাণিসম্পদমন্ত্রী এ কথা বলেন।

বরিশাল জেলা প্রশাসক এসএম অজিয়র রহমানের সভাপতিত্বে এতে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিভাগীয় কমিশনার অমিতাভ সরকার, মৎস্য বিভাগের উপপরিচালক মো. আজিজুল হক ও ইলিশ গবেষক ড. আনিছুর রহমান।

সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন, বাবুগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কাজী ইমদাদুল হক দুলাল, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আমিনুল ইসলাম, জেলা মৎস্য কর্মকর্তা আবু সাঈদ এবং ইলিশ বিশেষজ্ঞ ড. বিমল চন্দ্র দাস প্রমুখ।

এর আগে ঐতিহ্যবাহী দুর্গাসাগর দিঘিতে বিভিন্ন প্রজাতির এক হাজার কেজি মাছের পোনা অবমুক্ত করেন প্রাণিসম্পদমন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »
Share via
Copy link
Powered by Social Snap