যুক্তরাষ্ট্রের ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা সামরিক উত্তেজনা বাড়াচ্ছে : রাশিয়া

রাশিয়া বলেছে, যুক্তরাষ্ট্রের ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা সামরিক উত্তেজনা বাড়াচ্ছে।
মঙ্গলবার রুশ উপ পররাষ্ট্রমন্ত্রী সার্গেই রায়াবকভ রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা তাসকে বলেন, পুরো বিষয়টিই দুঃখজনক। যুক্তরাষ্ট্রের নেয়া পদক্ষেপ নিশ্চিতভাবেই সামরিক উত্তেজনা বাড়াচ্ছে। তবে, আমরা এ উস্কানির পাল্টা কোন পদক্ষেপ নেব না।
যুক্তরাষ্ট্র সোমবার এক ঘোষণায় বলেছে, তারা মধ্যমপাল্লার ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়েছে।
তৎকালীন সোভিয়েত ইউনিয়নের সঙ্গে ১৯৮৭ সালে করা ইন্টারমিডিয়েট রেঞ্জ নিউক্লিয়ার ফোর্সেস (আইএনএফ) চুক্তিতে এ ধরণের ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা নিষিদ্ধ ছিল। গত ২ আগস্ট চুক্তিটি ভেঙে গেছে।
এরপরই যুক্তরাষ্ট্র ক্যালিফোর্নিয়া উপকূলের মার্কিন নৌবাহিনী নিয়ন্ত্রিত সান নিকোলাস আইল্যান্ড থেকে এ ক্ষেপণাস্ত্রের উৎক্ষেপণ করে। একে ওয়াশিংটনের সক্ষমতা জোরদারের উদ্যোগ মনে করছেন বিশ্লেষকরা।
রায়াবকভ বলেন, ‘আমরা নিজেদেরকে ব্যয়বহুল অস্ত্র দৌড়ে শামিল হতে দেবো না।’
আইএনএফে ভূমিতে নিক্ষেপণযোগ্য প্রথাগত ও পরমাণু সবধরণের ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা নিষিদ্ধ ছিল। যুক্তরাষ্ট্র রোববার যে ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপণ করে তা ছিল পরমাণু শক্তি সম্পন্ন টমাহুক ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র যা আইএনএফ চুক্তির পর সরিয়ে নেয়া হয়েছিল।
রায়াবকভ আরো বলেন, চুক্তি থেকে সরে যাওয়ার মাত্র দু’সপ্তাহের মধ্যে এ ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপণ করা হয়। এর অর্থ চুক্তি থেকে সরে দাঁড়ানোর আগে থেকেই যুক্তরাষ্ট্র দীর্ঘদিন এ ধরণের ক্ষেপণাস্ত্র নিয়ে কাজ করে আসছিল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »
Share via
Copy link
Powered by Social Snap